হঠাৎ নাক দিয়ে রক্ত পড়ার কারণ এবং করণীয় | 20fours
logo
আপডেট : ৭ নভেম্বর, ২০১৮ ২১:২৩
হঠাৎ নাক দিয়ে রক্ত পড়ার কারণ এবং করণীয়
হঠাৎ নাক দিয়ে রক্ত পড়ার কারণ এবং করণীয়
20fours Desk

হঠাৎ নাক দিয়ে রক্ত পড়ার কারণ এবং করণীয়

আমাদের মাঝে অনেকেই আছেন যাদের হঠাৎ করেই নাক দিয়ে রক্ত পড়ে থাকে। আর এতেই অনেকেই বেশ ভয় পেয়ে যান। আসলে আমরা অনেকেই জানি না যে, নাক দিয়ে রক্তপাত হওয়া বা নাক দিয়ে রক্ত পড়া কিন্তু কোনো রোগ নয়। এটি আসলে কোনো রোগের একটি উপসর্গ মাত্র। তাই যদি কারও নাক দিয়ে হঠাৎ করে রক্তপাত হয় তাহলে ভয় না পেয়ে যথাযথ চিকিৎসা নিলেই এটি ভালো হয়ে যায়। আসুন আজ জেনে নিই নাক দিয়ে রক্তপাত হওয়ার কারণ এবং রক্তপাত হলে করণীয় সম্পর্কে।

নাক দিয়ে রক্তপাতের কারণঃ

বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই নাক দিয়ে রক্তপাত হওয়ার কারণ জানা যায় না। তারপরেও সাধারণত নাকে ফাঙ্গাল ইনফেকশন হলে, কোনো কারণে নাকে আঘাত পেলে, হেড ইনজুরি হলে, নাকে কোনো কিছু ঢুকে গেলে, নাকে প্রদাহ বা ইনফেকশন হলে, নাকের ভেতর পলিপ হলে, অনেক সময় নাকের হাড় বাঁকা থাকলে, নাকে টিউমার বা ক্যান্সার ইত্যাদি কারণে নাক দিয়ে রক্ত পড়তে পারে। অনেক সময় উচ্চ রক্তচাপ বা বিভিন্ন রক্তরোগ, যেমন- হিমোফিলিয়া, পারপুরা, লিউকেমিয়া, ভিটামিন সি ও ভিটামিন কে স্বল্পতা, লিভারের বিভিন্ন রোগের কারনেও নাক দিয়ে রক্তপাত হয়ে থাকে। কিছু ওষুধ রক্ত জমাট বাঁধতে দেয় না। এমন ওষুধের কারণেও নাক দিয়ে রক্তপাত হতে পারে। একই সাথে সাইনাসের বিভিন্ন সমস্যার কারণেও নাক দিয়ে রক্তপাত হতে পারে। এছাড়াও নাক দিয়ে রক্তপাতের কিছু পরিবেশগত কারণও রয়েছে। যেমন, এয়ারকন্ডিশন রুমে অনেকের নাক শুকিয়ে যেয়ে নাক দিয়ে রক্তপাত হতে পারে।

করণীয়ঃ

যদি হঠাৎ করে নাক দিয়ে রক্তপাত হতে থাকে তাহলে ভয় না পেয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা শুরু করতে হবে। এসময় একদমই আতঙ্কিত হওয়া যাবে না। সাধারণত ১০ মিনিট নাক চেপে ধরলে নাকের রক্তপাত বন্ধ হয়ে যায়। এছাড়াও আইসব্যাগ নাকের ওপর রাখলেও অনেক সময় নাক দিয়ে রক্তপাত বন্ধ হয়। এরপরেও যদি নাকের রক্তপাত বন্ধ না হয়, তাহলে ভয় না পেয়ে কাছের কোনো হাসপাতালে অথবা নাক-কান-গলা বিশেষজ্ঞের কাছে নিয়ে যেতে হবে। এছাড়াও নাকের রক্তপাত বন্ধ করার জন্য খুবই প্রচলিত একটি চিকিৎসা হলো কটারি বা নাকে প্যাক দেয়া। তবে এজন্য অবশ্যই একজন ভালো চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে নিতে হবে এবং তার মাধ্যমে নাকে প্যাক দিলে নাকের রক্তপাত বন্ধ হয়ে যায়। আর নাক দিয়ে যদি নিয়মিত রক্তপাত হয়ে থাকে তাহলে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে রক্তপাতের সঠিক কারণ বের করে চিকিৎসা করতে হবে।